পেঁপের যত গুণ

জাগো বাংলা ডেস্ক প্রকাশিত: ০৩:২৬ পিএম, ২৩ জুলাই ২০১৮
পেঁপের যত গুণ

সারা বছর পাওয়া যায় এবং সহজলভ্য ফলের মধ্যে পেঁপে একটি। যা কাঁচা বা পাকা দুই অবস্থায়ই খাওয়া যায়। যদিও অনেকে পেঁপে পছন্দ করেন না। কিন্তু এর যে গুণাগুন তা অন্য ফলে খুব কমই আছে।

হজমে সহায়ক এ ফলে খুব কম ক্যালোরি থাকে- যা ওজন কমাতে সাহায্য করে। এছাড়াও পেঁপের মধ্যে থাকা ক্যারোটিন নানা উপকার করে। ১০০ গ্রাম পেঁপের মধ্যে ক্যালোরি থাকে ৪৩ গ্রাম। সুগার থাকে ৭ দশমিক ৮২ গ্রাম, কার্বোহাইড্রেট থাকে ১০ দশমিক ৮২ গ্রাম।

প্রতিদিন একবাটি করে পাকা পেঁপে খেতে পারলে দৈনন্দিন ক্যালসিয়ামের চাহিদা অনেকটা মেটে। এছাড়াও যাদের দুগ্ধ প্রোটিনে সমস্যা আছে তারাও নির্ভয়ে খেতে পারেন। খেয়াল করে দেখবেন, এসব কারণেই যেকোনো হাসপাতালে প্রাতঃরাশ হিসাবে রোগীদের একবাটি পাকা পেঁপে খেতে দেয়া হয়।

এছাড়া যাদের পেটে গোলমাল দেখা দেয়, তারা পেঁপে খেতে পারেন। অন্যান্য ফলের তুলনায় পেঁপেতে ক্যারোটিন অনেক বেশি থাকে। কিন্তু ক্যালরির পরিমাণ বেশ কম থাকায় যারা মোটা হয়ে যাচ্ছেন বলে চিন্তা করছেন পেঁপে খেতে পারেন অনায়াসে। এই ফলে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন এ ও সি আছে।

অন্যদিকে স্যালাডে যদি কাঁচা পেঁপে মেশানো হয় তাহলে এটা আরও উপকারী। কারণ পেঁপেতে থাকে প্রচুর পরিমাণ পেপসিন। এই পেপসিন হজমে সাহায্য করে।

কাঁচা পেঁপেতে প্রচুর পরিমাণে প্যাপাইন নামক হজমকারী এনজাইম থাকে। যা অম্বল, কৃমি সংক্রমণ, আলসার, ত্বকে ঘা, কিডনি ও ক্যান্সার নিরাময়ে কাজ করে। পাকা পেঁপে ফল ও কাঁচা পেঁপে সবজি হিসেবে খাওয়া যায়। পেঁপে কাঁচা কী পাকা, দুটোতেই এর উপকারের মাত্রা সীমাহীন।

কাঁচা পেঁপের খেলে লিভার সংক্রান্ত নানা সমস্যা দূর হয়। এর সঙ্গে খিদে বাড়ে। জন্ডিস হওয়ার সম্ভাবনা কমায়। অপরদিকে পেঁপের রসে এমন কিছু উপাদান আছে যা আমাশয়, অশ্ব, কোষ্ঠকাঠিন্য প্রতিরোধে সক্ষম। পেঁপে খেলে শরীর থেকে দূষিত বায়ু সহজেই বেরিয়ে যায়। কাঁচা পেঁপের তরকারি পথ্যের কাজ করে।

এইচএম