মনোনয়ন দেওয়া হলে নির্বাচন করব : আতিকুল ইসলাম

জাগো বাংলা রিপোর্ট প্রকাশিত: ০৬:১৫ পিএম, ৩০ ডিসেম্বর ২০১৭
মনোনয়ন দেওয়া হলে নির্বাচন করব : আতিকুল ইসলাম

‘ডিএনসিসি উপ-নির্বাচনে আমাকে যদি আওয়ামী লীগ থেকে মেয়রপদে মনোনয়ন দেওয়া হয়, তাহলে আমি নির্বাচন করব।’

আওয়ামী লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে গণভবনে সৌজন্য সাক্ষাৎ করতে গিয়েছিলেন বলে শনিবার বিকাল পাঁচটার দিকে বাংলাদেশ তৈরি পোশাক প্রস্তুত ও রফতানিকারক সমিতির (বিজিএমইএ) সাবেক সভাপতি আতিকুল ইসলাম এসব কথা বলেন।

এর আগে আতিকুল ইসলাম বিকাল দু’টার দিকে গণভবনে প্রবেশ করেন। জানা গেছে, বিকাল তিনটার পর প্রধানন্ত্রীর সঙ্গে তিনি সাক্ষাৎ করেন। গণভবন থেকে বের হওয়ার পর এক প্রশ্নের জবাবে আতিকুল ইসলাম বলেন, ‘আমি প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ করতে গিয়েছিলাম। সাক্ষাৎ করেছি।’

সাক্ষাৎকালে ডিএনসিসির উপ-নির্বাচনে মেয়রপদে মনোনয়নের ব্যাপারে প্রধানমন্ত্রী তাকে কিছু বলেছেন কিনা, এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘আওয়ামী লীগ একটি বড় দল। এখানে মনোনয়নের একটি পদ্ধতি রয়েছে। নিয়ম রয়েছে। আমি কাজ করতেছি। দল থেকে যদি মনোনয়ন দেয়, তাহলে আমি নির্বাচন করবো।

প্রসঙ্গত, সম্প্রতি ডিএনসিসি উপ-নির্বাচন অনুষ্ঠানের বিষয় নির্বাচন কমিশন তাদের সিদ্ধান্ত জানানোর পরপরই আওয়ামী লীগ থেকে মেয়রপদে প্রার্থী হিসেবে অনেকের নামই আলোচনায় আসে। তবে, আওয়ামী লীগ থেকে আতিকুল ইসলামকে মেয়র পদে মনোনয়নের বিষয়ে ইঙ্গিত দেওয়া হয়েছে বলে দলটির একাধিক সূত্রে জানা গেছে। এরই পরিপ্রেক্ষিতে তিনি ইতোমধ্যে নগরীতে গণসংযোগ শুরু করেছেন।

উল্লেখ্য, গত ৩০ নভেম্বর লন্ডনে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ডিএনসিসি মেয়র আনিসুল হক মারা যান। এরপর ৪ ডিসেম্বর মেয়রের পদ শূন্য ঘোষণা করা হয়। এর ফলে ৯০ দিনের মধ্যে আরেকটি নির্বাচন অনুষ্ঠানের বাধ্যবাধকতা তৈরি হয়।

এর আগে ২০১৫ সালের ডিএনসিসি নির্বানে আনিসুল হক ৪ লাখ ৬০ হাজার ভোট পেয়ে মেয়র নির্বাচিত হয়েছিলেন। নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী বিএনপির তাবিথ আউয়াল পেয়েছিলেন ৩ লাখ ২৫ হাজার ভোট।

আইকে